ইডেন কলেজের সুন্দরীদের বাছাই করে চালাতো ব্যবসা: ছাত্রলীগ নেত্রী

রাজধানীর ইডেন মহিলা কলেজে ছাত্রলীগের বির্তক যেনো ছাড়ছেই না। গতকাল রাতে ইডেন কলেজে ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি জান্নাতুল ফেরদৌসকে মারধর করেন কলেজ শাখার সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভা ও সাধারণ সম্পাদক রাজিয়া সুলতানা। মারধরের পর রাতে ক্যাম্পাস উত্তপ্ত হয়ে পড়ে। আধিপত্য বিস্তার, সিট বাণিজ্য, সাধারণ ছাত্রীদের হেনস্তাসহ নানা হয়রানির বিষয়ে মিডিয়ায় কথা বলার কারণে এ মারধরে শিকার হয় জান্নাতুল।

এদিকে ইডেন কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি-সম্পাদককে অবাঞ্চিত ঘোষণা করে ছাত্রলীগের একাংশ। ইডেন কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সামিয়া আক্তার বৈশাখী গণমাধ্যমকে সভাপতি-সম্পাদককে নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন।

বৈশাখী বলেন, মেয়েরা উপস্থিতি খাতায় স্বাক্ষর করার সময় সভাপতির অনুসারীরা তাদের ছবি তুলে রাখেন। সেখান থেকে কোন মেয়েটা সুন্দর তা নির্বাচন করে রাখা হয়। তারপর সেই মেয়েদেরকে রুমে নিয়ে বিভিন্ন ধরনের হুমকি দেয়া হয়। খারাপ উদ্দেশ্যে তাদেরকে বিভিন্ন ধরনের প্রস্তাব দেয়া হয়। কিছুদিন আগে একজন মেয়ে কান্না করতে করতে এ বিষয়ে বিবৃতিও দিয়েছেন।

বৈশাখী আরও বলেন, আগেও এমন অনেক ঘটনা ঘটেছে। আমাদের রুমের মেয়েদেরকে তারা নিয়ে যেতে চেয়েছেন। কিন্তু মেয়েরা তো তাদের কাছে নিরাপদ মনে করেন না। কারণ তারা ওই মেয়েদেরকে দিয়ে বিভিন্ন ধরনের ব্যবসা করাতে চান।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি বেশ কিছু বিতর্কিত কর্মকাণ্ডে কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভাকে নিয়ে তুমুল বিতর্ক চলছে। বিশেষ করে ছাত্রলীগের কর্মসূচিতে না যাওয়ায় শিক্ষার্থীদের অকথ্য ভাষায় গালাগাল ও হুমকি দেওয়ার একটি অডিও গণমাধ্যমকে ফাঁস হয়। যদিও পরে এ নিয়ে ক্ষমা চান তিনি। শুধু তাই নয়, এ ঘটনায় চার দিন পর রিভার বিরুদ্ধে দুই ছাত্রীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ভাইরাল করার হুমকি দেওয়ার অভিযোগ ওঠেছে।

Check Also

রাজশাহীর বাজারে নতুন আলুর কেজি ২০০ টাকা

বছরের নতুন সবজি নতুন আলু। দাম একটু বাড়তি। তবে, না নিয়ে ক্রেতাদের তেমন ক্ষোভ নেই। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *