এবার ঢাবি ছাত্রীর প্রেমের টানে বাংলাদেশে মার্কিন যুবক

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) পুষ্টি ও খাদ্যবিজ্ঞান ইনস্টিটিউট থেকে সদ্য স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করছেন ফৌজিয়া হাসান অনন্যা। সাম্প্রতিক তাঁর প্রেমের টানে বাংলাদেশে ছুটে এসেছেন ইতালিয় বংশোদ্ভূত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক রোডোল্ফো আন্তোনিও পেজ। ইসলাম ধর্ম গ্রহণের পর রোডোল্ফো আন্তোনিও পেজ ঢাবির ওই শিক্ষার্থীকে বিয়েও করেছেন।

রোডোল্ফো আন্তোনিও পেজ খ্রিস্টান ধর্ম থেকে মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করাতে নতুন রেখেছেন নাম আহমেদ ফয়সাল। তবে আইনি জটিলতায় এখনই নাম পরিবর্তন করা সম্ভব হয়নি। পুরো বিষয়টি নোটারি করা হয়েছে পেজ যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা রাজ্যের মায়ামিতে থাকেন। সেখানে একটি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত আছেন।

জানা যায়, ২০২০ সালে করোনা মহামারির সময় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পরিচয় ফৌজিয়া হাসান অনন্যা এবং রোডোল্ফো আন্তোনিও পেজের। এভাবে কথা চালাচালি প্রায় আড়াই বছর কেটে যায়। ধর্মের কারণে বিয়ের পীড়িতে বসতে বাঁধ সাধে তাদের। গত ২৭ জুলাই ভালবাসার টানে বাংলাদেশে আসেন পেজ। এরপর ২৮ জুলাই সকালে ফৌজিয়া হাসান অনন্যার বাসায় যান এবং তাদের সঙ্গে আলোচনা হয়। গতকাল বিকেলে রামপুরায় একটি রেস্টুরেন্টে খ্রিস্টান ধর্ম থেকে মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করেন তিনি।

ধর্মের বাঁধা অতিক্রম করে গত শুক্রবার (২৯ জুলাই) রাতে রাজধানীর বাংলামোটরের একটি রেস্টুরেন্টে বিয়ে করেন তাঁরা। বিয়েতে ছেলের পরিবারের কেউ না থাকলেও কনের পরিবারের সবাই উপস্থিত ছিলেন।

অনন্যার বাবা মো. মাহমুদুল হাসান গণমাধ্যমে বলেন, আমরা চেয়েছি মেয়ে ও ছেলের শান্তি। ছেলে খ্রিস্টান হওয়ায় আমাদের আপত্তি ছিল। কিন্তু তারা নিজেরা এটি মিটিয়ে ফেলেছে। ছেলে মুসলিম ধর্মে ধর্মান্তরিত হয়েছে। আমি বিয়ের বিষয়ে ছেলের বাবা ও মায়ের সঙ্গে কথা বলেছি। তাদের এ বিয়েতে কোনো আপত্তি নেই। ছেলের বাবা অসুস্থ থাকায় বাংলাদেশে আসতে পারেননি।

তিনি আরও বলেন, বিয়েতে ২০ লাখ টাকা কাবিন হয়েছে। ৩ লাখ টাকা উসুল হয়েছে। ছেলে আগামী ৬ আগস্ট ঢাকা ত্যাগ করবে এবং আগামী ছয় মাসের মধ্যে আমার মেয়েকে সেখানে নিয়ে যাবে।

Check Also

বান্দরবানে হোটেলে কাজ নিয়েছিলেন রহিমা বেগম

খুলনার মরিয়ম মান্নানের মা রহিমা বেগমের অপহরণের প্রমাণ পায়নি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। বরং …

Leave a Reply

Your email address will not be published.