চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ায় ২৭ হাজার মানুষকে বিরিয়ানি ভোজ

ঢাকার ধামরাইয়ে সোমভাগ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে জয় লাভ করে প্রায় ২৭ হাজার মানুষকে বিরিয়ানি খাবারের আয়োজন করেছেন নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন।

শনিবার (১ জানুয়ারি) উপজেলার সোমভাগ ইউনিয়নের দেপাশাই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে এ বিশাল ভোজের আয়োজন করা হয়। দুপুর থেকে রাত পর্যন্ত প্রায় ২৭ হাজার নারী-পুরুষ, শিশু এ ভোজে অংশ নেয়।

জানা যায়, ধামরাইয়ের ইতিহাসে এটাই প্রথম একজন ইউনিয়ন চেয়ারম্যান তার পুরো ইউনিয়নবাসী ও সমর্থকদের গণভোজের জন্য ২৫০ ডেকেরও বেশি বিরিয়ানির আয়োজন করেছে। এই রান্না করেছেন নারী-পুরুষ মিলে ৯০ জন বাবুর্চি। যা প্রায় ২৭ হাজার মানুষকে খাওয়ানো হয়েছে। শুধু তাই নয় দূর দূরান্তের মানুষের জন্য পরিবহন ভাড়া করেও দেওয়া হয়েছে৷

এ বিষয়ে আয়োজক সোমভাগ ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, গত ১১ নভেম্বর ধামরাই উপজেলা ইউপি নির্বাচনে সোমভাগ ইউনিয়নের জনগণ আমাকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করছেন। আমার জন্য অনেকই হুমকি-ধামকি ও মারও খেয়েছেন। আমাকে ভালোবেসে ভোট দিয়েছেন তারা। আমার ইউনিয়নবাসী আমার কাছে আজকের এই আয়োজনটা প্রাপ্য ছিল। এই আয়োজন তাই কম হইয়ে গেছে। আমি কাজে বিশ্বাসী। ইউনিয়নের উন্নয়ন করতে চাই। আমার উন্নয়নের কথা যেন কয়েক প্রজন্ম পর্যন্ত পৌঁছে যায়।

এই গণভোজের উদ্বোধন করেন- ধামরাই ২০ আসনের এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা বেনজীর আহমেদ। তিনি বলেন, ইতোপূর্বে অনেকেই চেয়ারম্যান হয়েছে। এখানে অনেক চেয়ারম্যানই উপস্থিতও আছে। এমন গণসংযোগ বা গণভোজ আগে কখনো হয়নি। ধামরাইয়ের ইতিহাসে এটাই প্রথম।

উল্লেখ্য, গত ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ধামরাই উপজেলার সোমভাগ ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আজহার আলীকে হারিয়ে জয়লাভ করেন।

পাঠকের মন্তব্য:

Check Also

খেলা দেখতে গেছেন মালিক, ৫ গরু নিয়ে গেল চোর!

নেত্রকোনার মদনে চলমান বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখতে চায়ের দোকানে যান লুৎফর রহমান। খেলা শেষে গোয়ালঘরে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *