কক্সবাজারে দুটি কটেজে অভিযান, পতিতা-খদ্দেরসহ আটক ২১

কক্সবাজার শহরের লালদিঘি পাড়ের পাঁচতারা ও আহসান বোডিংয়ে অভিযান চালিয়ে পতিতা ও খদ্দেরসহ ২১ জন নারী পুরুষে আটক করেছে পুলিশ। এসময় বিপুল পরিমাণ ই”য়া”বা সেবনের সরঞ্জাম, যৌন উত্তেজক মেডিসিনসহ ২ বস্তারও অধিক ক”নড”ম উদ্ধার করা হয়। সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) বিকেল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত সদর মডেল থানার অপারেশন অফিসার সেলিম উদ্দিনের নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। আটক ২১ জনের মধ্যে ১৪ জন পুরুষ ৭ জন মহিলা। প্রাথমিকভাবে তাদের পরিচয় জানায়নি পুলিশ।

জানা যায়, শহরের লালদিঘীর পাড় এলাকার মৃত সৈয়দ নুরের ছেলে রমজান আলী সিকদারের মালিকানাধীন হোটেল পাঁচতারা ও মৃত আহসান উল্লাহর ছেলে শহর আলীর মালিকানাধীন আহসান বোর্ডিংয়ে প্রতিনিয়ত অসামাজিক কার্যকলাপ চলে। অফিস-আদালতে আসা সাধারণ মানুষ এবিষয়ে অস্বস্তিবোধ করে এবং পরিবার-পরিজন নিয়ে চলাফেরায়ও পড়তে হয় বিব্রতকর পরিস্থিতিতে। সাধারণ মানুষের অভিযোগের ভিত্তিতে থানা পুলিশ এ অভিযান পরিচালিত হয়েছে বলে একটি সুত্র দাবী করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) বিপুল চন্দ্র দে।

তিনি জানান, শহরের লালদীঘি পাড়ের হোটেলগুলোতে অসামাজিক কার্যকলাপ চলছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সেখানে অভিযান পরিচালিত হয়। আগে সিভিল পোশাকে সন্ধ্যায় খদ্দের সেজে পাঁচতারা ও আহসান বোর্ডিংয়ে কিছু অফিসার অবস্থান নিয়ে অভিযান পরিচালনা করে দুই বোর্ডিংয়ে ১৪ খদ্দের ও ৭ পতিতা আটক করা হয়েছে। পতিতাবৃত্তির দায়ে এসব হোটেলের মালিকদেরও আইনের আওতায় আনা হবে এবং এ অভিযান অব্যহত থাকবে বলে জানান তিনি।

পাঠকের মন্তব্য:

Check Also

নিখোঁজের দুদিন পর বাগানে মিলল প্রবাসীর স্ত্রীর মরদেহ

মাদারীপুরে নিখোঁজের দুদিন পর মৌসুমি আক্তার (২৪) নামে এক গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *