Thursday , June 30 2022

পু’ড়ে যাওয়া লঞ্চটিতে অক্ষত কোরআন রাখা চায়ের দোকান

ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে অ’গ্নিকা’ণ্ডে এমভি অ’ভিযান-১০ নামক যাত্রীবাহী লঞ্চটি পু’ড়ে ছাই হয়ে গেলেও র’হস্যজনকভাবে অক্ষত রয়ে যায় লঞ্চের নিচ তলার একটি চায়ের দোকান।

আ’গুনের সূত্রপাত কোথা থেকে নিশ্চিত জানা না গেলেও ইঞ্জিন রুম থেকে চায়ের দোকানের দূরত্ব মাত্র ১৫ গজ। এমন ঘটনায় অ’বাক সবাই। পরে চায়ের দোকানের ভিতরে পাওয়া যায় একটি পবিত্র কোরআন শরীফ।

দিয়াকুল গ্রামের বাসিন্দা লুৎফর রহমান চায়ের দোকানের ভিতরের একটি তাক থেকে কোরআন শরীফটি তুলে নিয়ে আসে। তিনি বলেন, কোরআন শরীফের জন্যই লঞ্চটির সম্পূর্ণ ক্ষতি হলেও এই দোকানটির কোন ক্ষতি হয়নি।

বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি ঝালকাঠি ইউনিটের স্বেচ্ছাসেবক সজল দেবনাথ বলেন, ‘শুক্রবার বেলা ১১ টার দিকে আম’রা যখন উ’দ্ধার কাজ করছিলাম, তখন দিয়াকুল গ্রামের একজন মু’সল্লী কোরআন শরীফটি নিয়ে পার্শ্ববর্তী একটি ম’সজিদে দিয়ে দেয়। একই গ্রামের ৬৫ বছর বয়সী শাহাদাত হোসেন বলেন, কোরআন শরীফটি আমাদের ম’সজিদে রেখে দেয়া হয়েছে।

তবে চায়ের দোকানের মালিক সেকেন্দার নি’খোঁজ রয়েছে বিধায় দোকানে কেন কোরআন শরীফ রেখেছিলো সে তথ্য পাওয় যায়নি।

Check Also

চিড়িয়াখানায় এক দর্শকের উপর বৃহৎ আকৃতির বানরের আকস্মিক আক্রমণ

একটি চিড়িয়াখানা বিপন্ন প্রাণী এবং প্রজাতি সম্পর্কে জানার জন্য একটি দুর্দান্ত জায়গা হতে পারে, তবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.