গালিগালাজ হজম করার যথেষ্ট ক্ষমতা আমার আছে: হিরো আলম

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল আলোচিত নামি আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম। বিভিন্ন সময় বিভিন্ন বিতর্কিত কর্মকাণ্ডের জন্য আলোচনায় থাকেন এই যুুবক। এই যেমন সবশেষ শ্রীলঙ্কার র‍্যাপার ইয়োহানির গাওয়া ‘মানিকে মাগে হিতে’ গানটি গেয়ে আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছেন তিনি।

শনিবার (৪ সেপ্টেম্বর) গানটি হিরো আলম তার ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করেন। প্রকাশের পর থেকে কমেন্ট বক্সে মন্তব্যের যেন ঝড় বইছে। বেশিরভাগই নেতিবাচক মন্তব্য, ট্রল করা হচ্ছে হিরো আলমকে নিয়ে। কেউ খারাপ ভাষায় গালিগালাজও করছে।

এ বিষয়ে হিরো আলম বলেন, ‘পেছনে মানুষ নানা কটু কথা বলবে, গালি দেবে আমার এ সব কিছু হজম করার ক্ষমতা আছে। না হলে এতোদিন যত কথা শুনেছি তাতে আমি হিরো আলম হারিয়ে যেতাম। মানুষের কথা গায়ে লাগালে অসুস্থ হয়ে যেতাম। কে কি বলছে বলুক, আমি আমার মতো করে গেয়েছি, এতে সবার ভালো লাগবে এমন কোনো কথা নেই।’

আলম বলেন, এই গান যে আমার নিজের ভালো লাগায় গেয়েছি তা নয়। অন্তত এক লাখের ওপর মানুষ আমাকে অনুরোধ করেছেন গানটা যেন গাই। এর মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের অনেকে রয়েছেন। রয়েছেন মধ্যপ্রাচ্যের বাঙালি ভাইয়েরা, এ ছাড়া বিভিন্ন দেশের বাংলাদেশি ভাইয়েরা।

দেশের অনেক দর্শক-শ্রোতা অনুরোধ তো করেছেনই। আপনারা তো জানেন আমার ১১ লাখের পেইজ রয়েছে, সেখানেই প্রতিদিন হাজার হাজার মেসেজ আসত। যার কারণে গানটা না বুঝলেও কষ্ট করে গেয়েছি।’

উল্লেখ্য, শ্রীলংকার র‍্যাপার ইয়োহানির গাওয়া ‘মানিকে মাগে হিতে’ গানটি কয়েক সপ্তাহ ধরে ফেসবুক, ইনস্টাগ্রামে ভাইরাল। গানটি এতদিনে শোনেন নি- এমন লোক কম। তবে গানটির অর্থ জানেন না অনেকেই, যদিও তারা গানটির ভিডিওতে মজেছেন, শেয়ার করছেন নিজের ওয়ালে।

মূলত গায়িকার গায়িকার জন্যই গানটি ভাইরাল বলে অনেকে বলছেন। রাতারাতি আলোচনায় এসেছেন এই গানের শিল্পী, হয়ে উঠেছেন স্টার। এরইমধ্যে এই গানের তামিল, মালয় ও বাংলা সংস্করণ বের হয়েছে। সেগুলোও বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এরপরই গানটি গেয়েছেন হিরো আলমও।

Check Also

‘হাওয়া’ নিয়ে নকলের অভিযোগ, মুখ খুললেন নির্মাতা

চঞ্চল চৌধুরী অভিনীত ‘হাওয়া’ সিনেমাটি মুক্তির পূর্বেই এরইমধ্যে সারা দেশব্যাপী আলোড়ন সৃষ্টি করেছে নানান কারণে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.